৩০ হাজার বেকার অস্থায়ী চাকরি পাবেন

নিজস্ব প্রতিবেদক : বেকার যুবকদের কর্মসংস্থানের লক্ষ্যে ন্যাশনাল সার্ভিস প্রোগ্রাম (এনএসপি) ২০টি উপজেলায় সম্প্রসারণ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার। এর ফলে দেশের আরও ৩০ হাজার বেকার যুবক ভাতাসহ প্রশিক্ষণ শেষে অস্থায়ী চাকরির সুযোগ পাবেন।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে গতকাল সোমবার মন্ত্রিসভার নিয়মিত সাপ্তাহিক বৈঠকে এ-সম্পর্কিত যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয়ের একটি প্রস্তাব অনুমোদন করা হয়।

বৈঠক শেষে মন্ত্রিপরিষদ সচিব মোহাম্মদ মোশাররাফ হোসাইন ভূইঞা সংবাদ ব্রিফিংয়ে বলেন, বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরো দরিদ্রদের যে শ্রেণিবিন্যাস করেছে, তার ভিত্তিতে এই ২০ উপজেলা নির্ধারণ করা হবে। প্রতিটি উপজেলায় দেড় হাজার করে যুবককে প্রশিক্ষণ দেওয়া হবে। এই কর্মসূচি ২০১৫-১৬ অর্থবছর পর্যন্ত চলবে।

নির্বাচনী ইশতেহারের অঙ্গীকার অনুযায়ী তিন মাস প্রশিক্ষণের পর দুই বছরের জন্য শিক্ষিত যুবক ও যুবতীদের কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা করতে ২০১০ সালে এনএসপি চালু করে বর্তমান সরকার। শুরুতে কুড়িগ্রাম, বরগুনা ও গোপালগঞ্জের ১৯ উপজেলায় ১৮ থেকে ৩৫ বছর বয়সী মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক পাস বেকারদের জন্য এই কর্মসূচির উদ্বোধন করা হয়। পরে বয়স ২৪ থেকে ৩৫ বছর এবং শিক্ষাগত যোগ্যতা উচ্চমাধ্যমিক পাস নির্ধারণ করা হয়। দ্বিতীয় পর্যায়ে রংপুর বিভাগের আট উপজেলা এবং তৃতীয় পর্যায়ে ২০১৪ সালের ডিসেম্বর ১৭ জেলার ১৭ উপজেলায় এই কর্মসূচি সম্প্রসারিত হয়।

এসব উপজেলার ১৮ থেকে ৩৫ বছর বয়সী বেকার নারী ও পুরুষ প্রতিদিন ১০০ টাকা ভাতাসহ তিন মাসের প্রশিক্ষণ পাবেন। প্রশিক্ষণ শেষে প্রতিদিন ২০০ টাকা ভাতাসহ বিভিন্ন সরকারি দপ্তরে দুই বছরের জন্য অস্থায়ী নিয়োগ পাবেন। এরপর তাঁরা দক্ষতা অর্জন করে পরবর্তী পর্যায়ে কাজে লাগাতে পারবেন।

গতকালের মন্ত্রিসভার বৈঠকে বিভিন্ন মন্ত্রণালয় ও বিভাগের ২০১৪-১৫ অর্থবছরের কার্যাবলি বিশ্লেষণ করা হয়। এতে দেখা যায়, ২০১৩-১৪ অর্থবছরের তুলনায় অর্থনীতির সব বিষয়ে অগ্রগতি হয়েছে।

মোশাররাফ হোসাইন ভূইঞা গতকাল মন্ত্রিপরিষদ সচিব হিসেবে মন্ত্রিসভার বৈঠকে শেষবারের মতো যোগ দেন। প্রায় চার বছর এ পদে থাকার পর তিনি বিশ্বব্যাংকের বিকল্প নির্বাহী পরিচালক হিসেবে যোগ দিচ্ছেন। নতুন মন্ত্রিপরিষদ সচিব মোহাম্মদ শফিউল আলম আগামী বৈঠকে অংশ নেবেন।