রোহিঙ্গাদের শরণার্থী বলা যাবে না

ডেস্ক : এখন থেকে বাংলাদেশে আশ্রয় নেওয়া রোহিঙ্গাদের শরণার্থী বলা যাবে না। ‘বলপূর্বক বাস্তুচ্যুত মিয়ানমারের নাগরিক’ বলবে বাংলাদেশ। আজ বৃহস্পতিবার সচিবালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে এই তথ্য জানিয়েছেন দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণমন্ত্রী মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া ও ত্রাণ সচিব মো. শাহ কামাল।
পরে ত্রাণ সচিব মো. শাহ কামাল বলেন, পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় চিঠি দিয়ে তাদের জানিয়েছে এখন থেকে রোহিঙ্গাদের ‘বলপূর্বক বাস্তুচ্যুত মিয়ানমারের নাগরিক’ বলার জন্য।
সংবাদ সম্মেলনে দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণমন্ত্রী মোফাজ্জেল হোসেন চৌধুরী বলেন, ইতিমধ্যে পাঁচ লক্ষাধিক রোহিঙ্গা বাংলাদেশে আশ্রয় নিয়েছে। তাদের উখিয়ার কুতুপালং এ অস্থায়ী ক্যাম্পে রাখা হয়েছে। এর আগে ২৩টি ক্যাম্পে থাকা রোহিঙ্গাদের একসঙ্গে রাখার ব্যবস্থা করা হয়েছে। এ জন্য আরও এক হাজার একর জমি বাড়িয়ে মোট তিন হাজার একর জমি বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে। এখানে অস্থায়ীভাবে সব রোহিঙ্গাকে রাখা হবে। ইতিমধ্যে ২৩টি ক্যাম্পের মধ্যে ২টি ক্যাম্পের রোহিঙ্গাদের এখানে নিয়ে আসা হয়েছে।
এই মাসের মধ্যে ২৩টি ক্যাম্পের সব মানুষকে একসঙ্গে নিয়ে আসা সম্ভব হবে বলে আশা করেন মন্ত্রী। এ সময় মন্ত্রী রোহিঙ্গা পরিস্থিতি মোকাবিলায় সরকারের বিভিন্ন পদক্ষেপের কথা তুলে ধরেন। তিনি বলেন, এ পর্যন্ত ৬১ হাজার রোহিঙ্গার বায়োমেট্রিক নিবন্ধন করা হয়েছে। তারা আশা করছেন দুই থেকে আড়াই মাসের মধ্যে সবাইকে নিবন্ধনের আওতায় নিয়ে আসতে সক্ষম হবে।
মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া জানান, রোহিঙ্গাদের নিয়ে কাউকে রাজনৈতিক ফায়দা নিতে দেওয়া হবে না। এই সমস্যা সারা বিশ্বের মানবতার সমস্যা।