‘ডিবি’ পরিচয়ে আইনজীবীকে তুলে নেওয়ার অভিযোগ

প্রকাশিত

সিরাজগঞ্জ প্রতিনিধি : সিরাজগঞ্জে সুপ্রীম কোর্টের আইনজীবী এ্যাডভোকেট আসাদ উদ্দিনকে ডিবি পুলিশ (গোয়েন্দা পলিশ) পরিচয়ে উঠিয়ে নেওয়ার অভিযোগ এনে সংবাদ সম্মেলন করেছন স্ত্রী নাহিদ সুলতানা সুইটি।

স্থানীয় নিমন্ত্রণ হোটেলে শুক্রবার বিকেল ৩টায় এ সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়।

লিখিত বক্তব্যে নাহিদ সুলতানা জানান, ২২ অক্টোবর বৃহস্পতিবার দুপুর আড়াইটার সময় ঢাকা থেকে সিরাজগঞ্জের সরঙ্গায় নিজ বাড়িতে ফিরছিলেন এ্যাডভোকেট আসাদ। কিন্তু বঙ্গবন্ধু সেতু অতিক্রম করার পর সিরাজগঞ্জ সদর উপজেলার সায়দাবাদ এলাকায় ৫-৭ ব্যক্তি ঢাকা থেকে রাজশাহীগামী ন্যাশনাল ট্রাভেলসের যাত্রীবাহী বাসটির গতিরোধ করে। পরে তাকে ডিবি পুলিশ পরিচয় দিয়ে আটক করে অজ্ঞাত স্থানে নিয়ে যাওয়া হয়। এরপর থেকে তার মোবাইল ফোনটিও বন্ধ রয়েছে। পরবর্তীতে সিরাজগঞ্জ সদর-সলঙ্গা ও ডিবি অফিসে খোঁজ নিতে গেলে তারা জানায়, এ ধরনের কোনো তথ্য তাদের জানা নেই।

২৪ ঘণ্টা পার হলেও এ্যাডভোকেট আসাদের কোনো সন্ধান না পাওয়ায় তার পরিবারের সদস্যরা এখন উদ্বিগ্ন। স্ত্রী সুইটি তার স্বামীকে ফিরে পেতে সরকারের নিকট জোর দাবি জানান।

অন্যান্যের মধ্যে এ সময় উপস্থিত ছিলেন নিখোঁজ আসাদের শ্যালক মনিরুল ইসলাম মাসুদ, শামীমা নাসরীন বিউটি, ভাবী রুপালী খাতুন প্রমুখ।

প্রসঙ্গত, সুপ্রীম কোর্টের আইনজীবী এ্যাডভোকেট আসাদ উদ্দিন মানবতাবিরোধী অপরাধী মতিউর রহমান নিজামীর সহকারী আইনজীবীর দায়িত্ব পালন করছিলেন।

শেয়ার করুন