মার্কিন হামলায় আইএসের সেকেন্ড-ইন-কমান্ড নিহত

বিদেশ ডেস্ক : উত্তর ইরাকে মার্কিন বিমান হামলায় আইএসের (ইসলামিক স্টেট) সেকেন্ড-ইন-কমান্ড ফাদহিল আহমেদ আল-হায়ালী ওরফে হাজী মুতাজ নিহত হয়েছেন বলে দাবি করেছে হোয়াইট হাউস। খবর বিবিসি ও আলজাজিরার।

হোয়াইট হাউসের মুখপাত্র নেড প্রাইস শুক্রবার এক বিবৃতিতে বলেন, ‘গত ১৮ আগস্ট (মঙ্গলবার) ইরাকের মসুলের কাছে গাড়িতে চড়ে যাওয়ার সময় মার্কিন বিমান হামলায় হাজী মুতাজ হিসেবে পরিচিত ফাদহিল আহমেদ আল-হায়ালী নিহত হয়েছেন। এ সময় তার সঙ্গে আইএসআইএলের মিডিয়া অপারেটিভ আবু আব্দুল্লাহও ছিল।’

বিবৃতিতে আরও বলা হয়েছে, ইরাক ও সিরিয়ার মধ্যে অস্ত্র, বিস্ফোরক, গাড়ি এবং লোকবল আদান-প্রদানে সমন্বয়ক হিসেবে কাজ করতেন হায়ালী।

হোয়াইট হাউসের পক্ষ থেকে আরও বলা হয়েছে, তিনি (হায়ালী) ইরাকে আইএসআইএলের অপারেশনের দায়িত্বে ছিলেন। গত জুনে মসুলে হামলার পরিকল্পনায় তিনি সহযোগিতা করেছিলেন বলেও উল্লেখ করা হয়েছে।

ইরাকের সাবেক প্রেসিডেন্ট সাদ্দাম হোসেনের সময়ে সেনাবাহিনীর লেফটেন্যান্ট কর্নেল ছিলেন হায়ালী। পরবর্তী সময়ে মার্কিন সেনারা তাকে আটক করে ক্যাম্প বুক্কায় বন্দী করে রাখে। সেখান থেকে বেরুনোর পর তিনি আইএসে যোগ দেন।

আইএসে হায়ালীর মতো আরও অনেক ডেপুটি প্রধান রয়েছেন বলে জানিয়েছেন মার্কিন প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের সাবেক উপদেষ্টা জসুয়া ওয়াকার।

এদিকে যুক্তরাষ্ট্রের পক্ষ থেকে দাবি করা হয়েছে, ইরাক ও সিরিয়ায় গত বছর থেকে চলতি বছরের জুন পর্যন্ত চালানো বিমান হামলায় ১০ হাজারেরও বেশি আইএস সদস্য নিহত হয়েছে।