আজ সোমবার, সেপ্টেম্বর ২৭, ২০২১ | ১২ আশ্বিন, ১৪২৮

শিরোনাম

তিউনিসে আল জাজিরার কার্যালয় বন্ধ

কোন পথে এগোচ্ছে তিউনিশিয়া?

প্রকাশিত: সোমবার, জুলাই ২৬, ২০২১


কোন পথে এগোচ্ছে  তিউনিশিয়া?

মুক্তমন ডেস্ক : আরব বসন্তের সুতিকাগার তিউনিশিয়ার প্রেসিডেন্ট সরকার ও সংসদের কার্যকারিতা স্থগিত করে দিয়ে পূর্ণ কর্তৃত্ব নিজে গ্রহণ করেছেন। সংসদের স্পীকার ড. রশিদ ঘানুশি প্রেসিডেন্টের পদক্ষেপকে সংবিধানপরিপন্থী বলে উল্লেখ করেছেন এবং এই পদক্ষেপকে বিপ্লবের বিরুদ্ধে অভ্যুত্থান হিসাবে চিহ্নিত করেছেন।

গুরুতর করোনা সংক্রমণ থেকে সদ্য সেরে উঠা তিউনিশিয়ার আন নাহদা দলের প্রধান ড. ঘানুশিকে সংসদে প্রবেশ করতে বাধা দিয়েছে সেনা সদস্যরা। তিনি সেখানে অবস্থান ধর্মঘট শুরু করেছেন। আন নাহদার পক্ষ থেকে বিপ্লব বিরোধি অভ্যুত্থান প্রতিহত করতে রাস্তায় নামার জন্য জনগণকে আহ্বান জানানো হয়েছে।

প্রেসিডেন্ট যখন সংসদ স্থগিত ও সরকার ভেঙ্গে দিয়ে নিজে সর্বময় কর্তৃত্ব গ্রহণের ঘোষণা দিচ্ছিলেন তখন তার আশেপাশে সেনা সদস্যদের দেখা যায়। প্রেসিডেন্ট সাইদ তার ৭ উপদেষ্টা নিয়েই এখন রাষ্ট্রের কর্তৃত্ব পরিচালনার কাজ শুরু করেছেন। তিনি রাষ্ট্রের আইনশৃঙ্খলা কঠোরভাবে নিয়ন্ত্রণ এবং নতুন সরকার গঠনের ইঙ্গিতও দিয়েছেন।

তার এই পদক্ষেপকে ‘গণতন্ত্র ও বিপ্লব বিরোধি’ বলে উল্লেখ করে এর সমালোচনা করেছেন তুরস্কের স্পীকার ও পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়। ক্ষমতা দখলের পর প্রেসিডেন্ট প্রথম পদক্ষেপের একটি হিসাবে তিউনিসে আল জাজিরার কার্যালয় বন্ধ করে দিয়েছেন এবং অফিসের প্রধানকে আটক করে নিয়ে যাওয়া হয়েছে।

শিগগিরই তিউনিশিয়ার নতুন পথযাত্রা সম্পর্কে ধারণা পাওয়া যাবে বলে মনে হচ্ছে। তবে দৃশ্যত অরাজনৈতিক ব্যক্তি হিসাবে নির্বাচিত প্রেসিডেন্ট সাইদ সামরিক বাহিনীর সমর্থনে এই অভ্যুত্থান ঘটিয়েছেন বলে মনে হচ্ছে। তবে এই পদক্ষেপকে রাজনৈতিক দলগুলো সম্মিলিত প্রতিরোধ করতে পারে বলে আভাস পাওয়া যাচ্ছে।

প্রেসিডেন্ট এই ধরনের একটা কিছু করার জন্য বেশ ক’দিন ধরে দেশের কোভিড পরিস্থিতি নিয়ে সরকারের পদক্ষেপের বিরুদ্ধে বিভিন্ন স্থানে বিক্ষোভ করা হচ্ছিল। এসব বিক্ষোভকারীদের কেউ কেউ প্রেসিডেন্টের এই পদক্ষেপের প্রতি সমর্থনও জানিয়েছেন। তবে সংসদের বড় দলগুলোর কেউই প্রেসিডেন্টের সাথে রয়েছেন বলে মনে হচ্ছে না।

দেশটির বিদায়ী প্রেসিডেন্ট এই পদক্ষেপ রাষ্ট্রকে বড় এক ধাপ পিছিয়ে দেবে বলে মন্তব্য করেছেন। নতুন অবস্থায় ট্রেড ইউনিয়ন নিয়ন্ত্রণ করা বাম দলগুলোর সমর্থন নেয়ার জন্য প্রেসিডেন্ট চেষ্টা চালাচ্ছেন বলে প্রতীয়মান হচ্ছে। সুদানে সামরিক সরকারের সাথে বামপন্থী শ্রমিক ইউনিয়ন নেতাদের ক্ষমতার অংশীদারিত্ব তৈরি হয়েছে।আর এর পরে সুদান ইসরাইলকে স্বীকৃতি প্রদানকারী দেশের মধ্যে যোগ দিয়েছে।

তিউনিশিয়ার রাষ্ট্রপতি আইনসভা স্থগিত এবং প্রধানমন্ত্রীকে বরখাস্ত করার পরে তিউনিশিয়ার সেনারা সংসদকে ঘিরে ফেলে এবং সংসদে স্পিকারকে প্রবেশ করতে বাধা দেয়। বিক্ষোভকারীদের একটি অংশ গভীর রাতে রাষ্ট্রপতি কাইস সাইদের সিদ্ধান্তকে সমর্থন জানালেও সমালোচকরা প্রেসিডেন্টের বিরুদ্ধে অসাংবিধানিকভাবে ক্ষমতা দখলের মাধ্যমে তিউনিসিয়ার তরুণ গণতন্ত্রকে হুমকির মুখে ফেলার অভিযোগ আনেন।

রাষ্ট্রপতির সিদ্ধান্ত ঘোষণার পরে রাতের বেলা মোহনাক এফএম নিউজ রেডিওর এক খবরে জানানো হয়েছে যে, স্পীকার ঘানুশি একজন সহযোগীর সাথে সংসদে প্রবেশের চেষ্টা করেন কিন্তু তাকে অবরুদ্ধ করা হয়। তিনি জোর দিয়ে বলেন যে রাষ্ট্রপতির পদক্ষেপ সত্ত্বেও সংসদ তার কাজ আইনানুগভাবে চালিয়ে যাবে। ড. ঘানুশির এই চ্যালেঞ্জকে সহজ কোন বিষয় বলে মনে করা হচ্ছে না।

রাষ্ট্রপতি সহিংসতা নিয়ে উদ্বেগকে তার সিদ্ধান্তের কারণ হিসাবে উল্লেখ করেছেন এবং জনসাধারণের শৃঙ্খলা লঙ্ঘনের বিরুদ্ধে হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করেছেন এবং প্রতিবাদকারীদের কঠোর শাস্তির হুমকি দিয়েছেন। তিনি সামরিক ধাঁচের টেলিভিশন ভাষণে বলেন, “আমরা এই সিদ্ধান্তগুলি নিয়েছি ... তিউনিসিয়ায় সামাজিক শান্তি ফিরে না আসা পর্যন্ত এবং রাষ্ট্রকে না বাঁচানো পর্যন্ত এই কার্যক্রম চলবে।”

এক সময়ের আইন পেশার ব্যক্তি প্রেসিডেন্ট তিউনিসিয়ার সংবিধানের একটি বিধানের উল্লেখ করে বলেন, সৃষ্ট পরিস্থিতি জাতীয় প্রতিষ্ঠানগুলি এবং দেশের স্বাধীনতাকে হুমকির মুখে ফেলে দিলে এবং জনগণের স্বাভাবিক কাজকে বাধা দিলে, আসন্ন বিপদ ঘটলে, ব্যতিক্রমী ব্যবস্থা গ্রহণের অনুমতি দেয় সংবিধান। এই পদক্ষেপ এর অংশ হিসাবে তিনি নির্বাহী ক্ষমতা গ্রহণ এবং একটি অনির্দিষ্ট সময়ের জন্য সংসদকে ফ্রিজড করতে পারেন।

সেনাবাহিনী ও নিরাপত্তা বাহিনীর নেতৃত্বের সাথে রবিবার বৈঠকে দেয়া বক্তব্যে সাইদ বলেছিলেন যে, তিনি এখন একজন নতুন প্রধানমন্ত্রীর সহায়তায় কার্যনির্বাহী কর্তৃত্ব গ্রহণ করবেন, পরে তাকে নিয়োগ দেওয়া হবে।

তবে স্পীকার ড. ঘানুশি বলেছেন যে, রাষ্ট্রপতি তাঁর এবং প্রধানমন্ত্রীর সাথে এই পদক্ষেপের ব্যাপারে সংবিধানের বিধান অনুযায়ী পরামর্শ করেননি। অন্যরাও রাষ্ট্রপতির সিদ্ধান্তের সমালোচনা করেন। প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি মনসেফ মারজৌকি রাজনৈতিক সংলাপের আহ্বান জানিয়ে একটি ফেসবুক ভিডিওতে বলেছেন, আমরা আজ রাতে একটি বিশাল ধাপ পিছনে ফেলেছি, আমরা স্বৈরশাসনে ফিরে এসেছি।

এর আগে রবিবার, তিউনিসিয়ার বেশ কয়েকটি শহরে বিক্ষোভ মিছিল করা হয়েছিল যাতে সরকার পদত্যাগের দাবি জানান হয়। তিউনিসিয়ার পার্লামেন্টের স্পিকার রশিদ ঘানুশির নেতৃত্বাধীন আন নাহদা পার্টির কয়েকটি কার্যালয়েও হামলা করা হয়। ঠিক এর পরই তিউনিশিয়ার প্রেসিডেন্ট প্রধানমন্ত্রী হিচাম মেচিচিকে বরখাস্ত করেছেন এবং সংসদ স্থগিত করেছেন। এই পদক্ষেপ নেবার অজুহাত তৈরির জন্যই বিক্ষোভগুলোর আয়োজন করা হয় বলে ধারণা করা হচ্ছে।

সংসদের বৃহত্তম দল আন নাহদা তার ফেসবুক পেজে এক বিবৃতিতে বলেছে,“কাইস সাইদ যা করছেন তা হ'ল বিপ্লব ও সংবিধানের বিরুদ্ধে রাষ্ট্রীয় অভ্যুত্থান এবং আন নাহদা ও তিউনিসিয়ার জনগণ বিপ্লবকে রক্ষা করবে”। দলটি ‘বিপ্লবের বিরুদ্ধে রাষ্ট্রীয় অভ্যুত্থান’ হিসাবে রাষ্ট্রপতির পদক্ষেপের নিন্দাও করেছে।

তিউনিসভিত্তিক সাংবাদিক রাবেব আলৌই আল জাজিরাকে বলেন যে, সাইদের পদক্ষেপে বিস্মিত হবার মতো কিছু হয়নি, কারণ তিনি সংসদ ভেঙে দেওয়ার এবং প্রধানমন্ত্রীকে বরখাস্ত করার হুমকি আগে থেকেই দিয়ে আসছিলেন।

এদিকে তুরস্কের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সোমবার তিউনিসিয়ার 'জনগণের ইচ্ছার' প্রতিনিধিত্বকারী সংসদ স্থগিত হওয়ার বিষয়ে গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করেছে। আঙ্কারা বলেছে, ‘গণতান্ত্রিক অর্জন এবং তিউনিসিয়ার অনন্য অবস্থানকে রক্ষা করা কেবল তিউনিসিয়ারই নয়, এই পুরো অঞ্চলের জন্যও গুরুত্বপূর্ণ। আমরা আশা করি যত তাড়াতাড়ি সম্ভব তিউনিশিয়ান সংবিধানের কাঠামোর মধ্যেই গণতান্ত্রিক ব্যবস্থা পুনর্বহাল করা হবে।’

তুরস্কের ক্ষমতাসীন একে পার্টির মুখপাত্র ইমরেলিক সোমবার বলেছেন, “তিউনিসিয়ায় নির্বাচিত সংসদ স্থগিত করা এবং সরকার বাতিল করা রাজনৈতিক বৈধতার বিরুদ্ধে একটি অভ্যুত্থান”। টুইটারে তিনি লিখেছেন, “তিউনিসিয়ার রাষ্ট্রপতির এই অবৈধ উদ্যোগের কোনও সাংবিধানিক ভিত্তি নেই।”

তুর্কি সংসদের স্পিকার মোস্তফা ইন্টেপও এই উন্নয়নের বিষয়ে মন্তব্য করে বলেছিলেন: তিউনিসিয়ার ঘটনা উদ্বেগজনক; নির্বাচিত সংসদ এবং এর প্রতিনিধিদের দায়িত্ব পালন অবৈধ ঘোষণা করার সিদ্ধান্তগুলি সাংবিধানিক ব্যবস্থার বিরুদ্ধে অভ্যুত্থান।

উল্লেখ্য, রবিবার গভীর রাতে প্রেসিডেন্ট সাইদ এক বিবৃতিতে প্রধানমন্ত্রী হিচেম মেচিচিকে বরখাস্ত করা এবং সংসদকে ৩০ দিনের জন্য স্থগিত করার আদেশ দিয়ে বলেন, তিনি একজন নতুন প্রধানমন্ত্রীর পাশাপাশি সরকার পরিচালনা করবেন। তিনি সংসদ সদস্যদের যে দায়মুক্তি রয়েছে তাও বাতিল করেন। এর দ্বারা কর্তৃত্ব গ্রহণের পর তিনি রাজনীতিবিদদের উপর দমনপীড়ন চালাবেন বলে মনে হচ্ছে। এটিকে ২০১১ সালের বিপ্লবের পরে সবচেয়ে বড় চ্যালেঞ্জ বলে উল্লেখ করা হচ্ছে।

তিউনিশিয়া ‘আরব বসন্ত’ কে উদ্দীপ্ত করেছিল এবং গণতান্ত্রিক শাসনের পক্ষে স্বৈরতন্ত্রকে প্রথম ক্ষমতাচ্যুত করেছিল। নতুন পরিস্থিতির পেছনে মূল কলকাঠি সংযুক্ত আরব আমিরাতের মাধ্যমে ইসরাইল নাড়িয়ে যাচ্ছে বলে তিউনিশিয়ার অনেক রাজনৈতিক পরযবেক্ষক মনে করছেন। এর ফলে প্রতিরোধ গড়া ছাড়া বিকল্প কমই থাকছে আন নাহদার মতো ব্রাদারহুড ঘরানার দলগুলোর জন্য। লিবিয়ার নিকট প্রতিবেশি দেশ হিসাবে তুরস্কের জন্য তিউনিসিয়া অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। আঙ্কারা বিষয়টিকে সেভাবে দেখার সম্ভাবনা রয়েছে।

লুটপাট হচ্ছে মেগা প্রজেক্টে মেগা : ফখরুল

লুটপাট হচ্ছে মেগা প্রজেক্টে মেগা : ফখরুল

মালদ্বীপের হাইকমিশনারের সাক্ষাৎ স্পিকারের সঙ্গে

মালদ্বীপের হাইকমিশনারের সাক্ষাৎ স্পিকারের সঙ্গে

বিদেশি পিস্তল ও মাদকসহ সন্ত্রাসী গ্রেপ্তার

বিদেশি পিস্তল ও মাদকসহ সন্ত্রাসী গ্রেপ্তার

আওয়ামী লীগকে গণঅভ্যুত্থান মোকাবেলা করতে হবে

আওয়ামী লীগকে গণঅভ্যুত্থান মোকাবেলা করতে হবে

দেশে দুর্নীতি রয়েছে : পরিকল্পনামন্ত্রী

দেশে দুর্নীতি রয়েছে : পরিকল্পনামন্ত্রী

তুরস্ক মার্কিন হুমকিতে ভয় পায় না

তুরস্ক মার্কিন হুমকিতে ভয় পায় না

মেসিকে ছাড়াই ভালো খেলছে বার্সেলোনা

মেসিকে ছাড়াই ভালো খেলছে বার্সেলোনা

নির্বাচনে হেরে গেল মারকেলের দল

নির্বাচনে হেরে গেল মারকেলের দল

মাদকবিরোধী অভিযান রাজধানীতে গ্রেপ্তার ৫৫ জন

মাদকবিরোধী অভিযান রাজধানীতে গ্রেপ্তার ৫৫ জন

দক্ষ ও চৌকষ ব্যাংকার গড়ে তোলার লক্ষ্যে ট্রেনিং

দক্ষ ও চৌকষ ব্যাংকার গড়ে তোলার লক্ষ্যে ট্রেনিং

ব্যাংক কর্মকর্তাকে মারধরের মামলায় আসামী আটক

ব্যাংক কর্মকর্তাকে মারধরের মামলায় আসামী আটক

এসএসসি পরীক্ষার রুটিন মিলবে

এসএসসি পরীক্ষার রুটিন মিলবে

আজ বিশ্ব পর্যটন দিবস

আজ বিশ্ব পর্যটন দিবস

পশ্চিম তীরে পাঁচ ফিলিস্তিনি নিহত

পশ্চিম তীরে পাঁচ ফিলিস্তিনি নিহত

তালেবান মন্ত্রীসভাকে সন্ত্রাসী দল আখ্যা ইতালির

তালেবান মন্ত্রীসভাকে সন্ত্রাসী দল আখ্যা ইতালির

ই-কমার্স বিষয়ে সচেতনতা জরুরী ইআরএফ-এ বাণিজ্যমন্ত্রী

ই-কমার্স বিষয়ে সচেতনতা জরুরী

তিতুমীর কলেজ বিএনসিসি`র দায়িত্বে আমিনুল, ফারুকী

তিতুমীর কলেজ বিএনসিসি`র দায়িত্বে আমিনুল, ফারুকী

কানাডার ক্যাথলিক যাজকরা ক্ষমা চাইলেন

কানাডার ক্যাথলিক যাজকরা ক্ষমা চাইলেন

নোয়াখালীতে নাগরিক সংলাপ অনুষ্ঠিত

নোয়াখালীতে নাগরিক সংলাপ অনুষ্ঠিত

খেলোয়ারকন্যাদের হ্যান্ডবলে চ্যাম্পিয়ন জয়

খেলোয়ারকন্যাদের হ্যান্ডবলে চ্যাম্পিয়ন জয়

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদকঃ জিয়াউল হক মিজান
ব্যবস্থাপনা সম্পাদকঃ মোহাম্মদ ছাদেকুর রহমান
প্রকাশকঃ আব্দুল্লাহ আল মাহমুদ

বার্তা বিভাগ মোবাইল: +88 016 01 22 45 45
বাণিজ্য বিভাগ মোবাইল: +88 017 88 445 222

সম্পাদকীয় ও বাণিজ্যিক কার্যালয়:
৩/২, আউটার সার্কুলার রোড, প্রশান্তি হাইটস, স্যুট # এ-৪ (পঞ্চম তলা), রাজারবাগ, ঢাকা-১২১৭ থেকে প্রকাশিত।

ই-মেইল: muktomonnews24@gmail.com
ই-মেইল: muktomontv@gmail.com


© ২০২০ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | মুক্তমন এসএসএস লিমিটেডের একটি প্রতিষ্ঠান | About Us | Privacy Policy